কবিতায় নন্দিনী সেন গুপ্ত

হে প্রেম

শহর, তোমার অলিগলি জুড়ে প্রেম
জন্মায়, নাকি মরে যায় প্রতিদিন
ছোট ছোট গাছ শিকড়ে পায়না জল
কেউ তো রাখেনা ভালবাসবার ঋণ

আমাকে কিনেছ হাজার পক্ষপাতে
নিয়েছে শহর নিক্তিতে মেপে মেপে
আমিও কিনেছি মুহূর্ত অফুরান
বসন্তদিন রেখেছি ড্রয়ারে চেপে

নদীটিকে বেঁধে রেখে দিই শত বাঁধে,
দূষণের কথা কফির কাপের নিচে
চেপে যায়, আজ বাতাসবন্দি খেলা
বৃষ্টি এলেও, মাটি তো যায়না ভিজে

ধুয়ে যায় না তো হাজার বিভেদবোধ
পৃথিবী এসব চিহ্ন দেয়নি এঁকে
প্রেমের বদলে লোভ বেছে নিয়ে আজ
মানুষ, তোমার পথ গেছে দূরে বেঁকে।

শহর গিলেছে অনেক গ্রামের ঘর
তুলসীমঞ্চ, কালকাসুন্দি ঝোপ
নারকেল বন, বাঁকা নদীখাত ছেড়ে
আমার মনেও এঁকেছে অনেক লোভ

সব লোভ ছেড়ে ফিরতে চেয়েছি রোজ
হে প্রেম, তোমাকে চেয়েছি চমকে দিতে
শহর আমাকে ঘেরে শত অজুহাতে
ভাবের ঘরেতে ঘুণ ধরে চারিভিতে

হে প্রেম, তুমি কি আমার ঠিকানা নেবে?
চৌকাঠ জুড়ে বিছিয়ে রাখছি সুখ
পেরিয়ে এসো হে সব বিভেদের বোধ
মুখোশ খুলছি, তোমাকে দেখাব মুখ।

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!