দিব্যি কাব্যিতে স্বপনকুমার পাল

জীবন দর্শন ও ভাবনা

জন্মান্তরবাদে বিশ্বাসী মানুষের চেহারার
আগল পালটিয়ে পালটিয়ে
উঠানের খুদ কুড়োর মতো কেটে গেল
এখানে বিশ্বাসের নব জন্ম হলে
আর একটা নতুন পৃথিবী গড়তে দেখা যেত
অবান্তর স্বপ্নে কালিমা মুছে দিয়ে
ভাবনার স্বচ্ছতা ফুটে উঠুক দর্পনে
জীবন নশ্বর ক্ষণস্থায়ী জেনে ও মানুষ
একাধিক পথে হেঁটে গন্তব্যের সিঁড়ি
ভেঙে ভেঙে সঠিক আলোর পথ পেলে
মানুষের ক্ষণ জন্ম নশ্বর জীবন ও দীর্ঘ হয়
একাকিত্ব ভুলে মানুষের কোলাহলে মিশে যাও
জীবনকে দেখ
জীবনকে যোগ কর জীবনের সাথে
পৃথিবীকে ভালোবাস
আপন গরিমা ত্যাগ করে
জীবন ও জাতির গৌরবে গৌরবান্বিত হও
মুক্ত বিহঙ্গের ডানায় সুবাস লাগিয়ে
তুমি ও সুবাসিত হও
ফুলের মতো সুন্দর হয়ে উঠুক জীবনের প্রভাত
একটি ফুলের মতো সুন্দর জীবনে
একটি প্রজাপতি আসুক অন্তত
আকাশের পরিসীমা মেপে লাভ কী
জীবনের পরিসীমা গন্ডি ভেঙে
প্রতি জীবনের দরজায় চন্দনের
একটি টুকরো লাগিয়ে দাও
জীবন যৌবন মনুষ্যত্ব মানবিকতা
সব ফুটে উঠবে পবিত্র ভাবনায়।

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!