গল্পবাজে সুদীপ ঘোষাল

হিমপরশ

সোহাগি সকাল ভ’রে হেঁটে যায় কাশবন
নদীর ধারে ধারে আজ সাদার প্যান্ডেল
দুর্গার আগমনী সংগীতে শেষ হোক দুঃখের রাত
এস শরত, হিমপরশের নিমন্ত্রণে
পেঁজা মেঘ দুঃখ ভুলিয়ে দাও প্রেমপরশে
অজান্তে ভাসে বলাকার সারি
সবুজ মাঠ মাঠে মেঘ, চিঠি কাঁধে
নিয়ে আসে উৎসবের ঋতু

বাদল দিন

বাদল দিনে ঝির ঝির পুষ্পবৃষ্টির মাঝে জলের আয়নায় নিজেকে দাঁড় করাই।প্রতিবিম্বে ফুটে ওঠে বিগত স্কুলপোশাকের সোহাগ।বন্ধুর পিঠে সওয়ারি হয়ে নদী পারাপার,পুকুরস্নান।ভেসে ওঠে বর্ষার কাদা ও ফুটবলের মায়া। কালো মেঘের গর্জন তার বটপাতার রেনকোট জড়িয়ে দর্শন করছে জলের মায়াবি দখলের খেলা।ভিজে হাওয়ায় উড়ে চলে মনের বেড়ি। এখনও জানালা খুলে অক্ষরের আড়ালে ভিজে মন বলে, ফিরে এস বৃষ্টির নলধারা, মাঠভেজা রাখালিয়া সুর।

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!