গুচ্ছ কবিতায় বর্ণজিৎ বর্মন

১। নেক্সট প্লানিং

এই ঝাঁ চকচকে বাড়িটা রেখে যাবো
প্রিয় বান্ধবী তোমার জন্য,
এই বাড়ির গতরে লেখা আছে
প্রেম নাম ধ্বনি
বসন্ত বাগান , সুখ জৌলুস পদাবলী..
কোয়ারেন্টিন – এ সব তোমার জন্য
শেষ মুহূর্তের অশ্রুবিন্দু
যতনে গোপনে রেখো তবু
আমর সন্তান দেখো সব আছে
Isolation এ , তুমি ক্লিক করে
দেখে নাও
সমস্ত ফুটেজ সময়ে ।
সব কিছুই ধ্বংসের মুখে , নিজেকে সামলাও
– যতই তারা খসুক আকাশের বুক থেকে
জানালাটা খুলে রেখো , সব প্রশ্নের উত্তরে বীভৎস সমাধির চৈত্রে …

২।

অর্ধ-খাওয়া রুটি রক্তে ভেজা
বর্ণজিৎ বর্মন
ড্রোনের চোখে জল
মৃতলাশ ছেঁড়া রুটি পিচের কোলে
উন্মুক্ত মাতৃস্তন মুখে শিশু
আদালতে বাসী মাংস খণ্ডের তর্জমা Torture
সাংবাদিক পোস্টমর্টেম রিপোর্টে
মাচা খসা লাউ শাক
বৈশাখে হৃদয়হীন ন্যাংটো কারাগারে বন্দী,
প্রশ্নের উত্তরে শুয়ে থাকে
রক্তে ভেজা অর্ধ খাওয়া সকাল

৩। জীবন নদী

ইলেকট্রিক চুল্লিতে কাঠের সোনা মুখী নদী দাহ হয়
আঁচল গুজে চোখের জ্ল
প্রতিবেশী ,আত্মীয় স্বজন, ঋষি
অন্তিম ঘাটে বয়ে আনে দেহ
একটা নদী পুড়ে যায়
সীমাহীন পুকুর গুমরে কেঁদে কেঁদে ওঠে
অসমাপ্ত পিতার স্বপ্ন চেয়ে দেখে নিশ্চল প্রকৃতি

৪। এই হয় না কি

রাজ নগরিতে দেখো
কতো অবৈধ বাড়ির ওয়ালে
বৈধ সন্তানের বার্থ সার্টিফিকেট ঝুলছে
পুড়ছে শুধু
গ্রামের বধূর শাড়ির আঁচল
লজ্জাহীনতা তকমা জুড়ে দিয়ে আত্মহত্যার
প্ররোচনা ঘণ্টা বাজিয়ে দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে দেখে এক দল পাশন্ড
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!