কবিতায় সমরেশ মন্ডল

সমরেশ মন্ডল জন্ম তেসরা এপ্রিল 1954 বীরভূমের কেন্দ্রগড়িয়া গ্রামে। যা প্রকৃতার্থে মামাবাড়ি ।পড়াশোনা গ্রামের স্কুল এবং শতাব্দীপ্রাচীন নাকড়াকোন্দা হাই স্কুল ।যেখানে ফাল্গুনী মুখোপাধ্যায় এর জন্মস্থান এবং শৈলজানন্দ মুখোপাধ্যায় এর পুরনো স্কুল। এখান থেকে উচ্চমাধ্যমিক পাশ করার পর আসানসোল বিবি কলেজ থেকে বিজ্ঞান রানিগঞ্জ টিডিবি কলেজ থেকে কলা বিভাগের স্নাতক ।এলএলবি ও বাংলা এম এ পাঠ অসমাপ্ত রেখে কয়লা খনির জরিপ বিভাগের শিক্ষানবিশি , অতঃপর জরিপ বিষয়ে অভিজ্ঞান সংগ্রহ।শিক্ষানবিশি থেকে আধিকারিক হয়ে অবসরগ্রহণ পর্যন্ত পাণ্ডবেশ্বর ছিল তার কর্মস্থল । দেশ আনন্দবাজার পত্রিকা, সানন্দা ,যুগান্তর, বর্তমান ,নবকল্লোল ,কৃত্তিবাস সহ বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় গল্প কবিতা ছড়া লিখেছেন ।এ যাবৎ কাব্যগ্রন্থ প্রকাশিত হয়েছে পনের টি।দুটি ছোট গল্পের বই এবং একটি উপন্যাস প্রকাশিত ।এবং গ্রামীণ পরিমণ্ডলে যাপিত জীবন হলেও মূল ধারার সাহিত্য নিবাসীদের সাথে প্রত্যক্ষ যোগাযোগ রয়েছে নিত্যদিন।

এত আলো নরম দৃষ্টির পরেও

কি আলো যে  ফুটে ওঠে তখন আজ সকালে
কি করে তা বলি!
দীপ্তিহীন জীবনের খেলায় এত তরল চোখে
তাকালে ভয় করে
থমকে যাই । একটি অ্যারো চিহ্ন
সঠিক ছুঁচোলো ঘন কৃষ্ণ বর্ণ
যেন ক্রোকোয়েল নিব  দিয়ে ঘনিষ্ঠ মুহূর্তে আঁকা।
মানে তার যাইহোক
যদি কিছু বাড়তি দায়িত্ব নিতে হয়
তাই নিজের কাছেই সতর্ক হয়ে যাই।
একটাও বানান যেন ভুল না হয়
কমা পূর্ণচ্ছেদ গুলিও যেন বসে ঠিকঠাক।
তাহলে কি সেই কবেকার স্বপ্নে পাওয়া
মৃদু প্রতিষ্ঠান শক্ত হয়ে গেল ধীরে ধীরে
শখের আলো পুষে রাখা
চারণ ভূমিতে পদচিহ্নে পদচিহ্নে
কুসুম মুছে দিয়ে হিসাবের করি মেলাতে চাইছে
জীবন
এমন তো কথা ছিল না এত আলো এত
নরম দৃষ্টির পরেও!
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!