কবিতায় শিবাজী সান্যাল

এই আমি

মাপাজোখা নিয়মের গ্রন্থিতে পারিনা চলতে
তবে স্বীকৃত পরিধি অমান্যের ধৃষ্টতা করিনি কখনও
এই যে সব সাজান আলমারি ফুলদানি ঝাড়বাতি
দেয়ালে সব আঁকা ছবি ,খাতায় কবিতা স্বরলিপি
জন্মদিনের রাঙা উপহার বেলুন তোমার খোঁপার কাঁটা
সব এলোমেলো করে ফেলি নিজের অজান্তে ।
যত প্রতিশ্রুতি যত প্রতিজ্ঞা
কিছুই পারিনা রাখতে
এমনই অনিশ্চিত অবিশ্বাসনীয় আমি ।
কিছু নিয়ম থাকে নিজস্ব বলয়ে মানি তাকে
সন্ধ্যে হলেই পাব শান্ত সুন্দর গেরুয়া সূর্যাস্ত
সাগরের যৌবন উচ্ছল চন্দ্র স্পর্শ জোয়ার
বর্ষার মেঘ দেবে বনবীথির সবুজ কম্পন থর থর
নিশিথের নিষ্পাপ শব্দে তোমার অপরূপ রূপে
মৃদঙ্গের অনুরণন । যাতে এক ভালবাসায় তৃপ্ত হয়
জীবনের গাথা । এত নিয়মবদ্ধতা শৃঙ্খল নয়
নূপুরের লজ্জানত শব্দের ঝংকারে
নৃত্য যেন মাতে এক শুদ্ধ উৎসবে ।
নিয়ম অনিয়মের দ্বন্দ্বে
যদি খোঁজ অপরাধী যে যেতে পারে সীমান্ত অবধি
খুশির অন্বেষণে কাঠগড়ায় পাবে তুমি আমাকে ।
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!