কবিতায় বলরুমে শম্পা গুপ্ত

প্রজায়িনী

সায়াহ্নে মুকুরে অনাবৃত
আনত স্তন, মাংসল কটি ,
জঙ্ঘা দেখে গণিকা ।
নিষ্ঠীব ছেটায় দেহে ক্রোধে।
উপকন্ঠে ভিড় জমায় প্রিয়কেরা।
দংশায় ,শোণিত ঝরায়।
নখাগ্রে উঠে আসা পলল চোষে রক্তপায়ী বাদুড়ের মতো।
দেহে খুঁজে নেয় কামুক সুখ।
আসে ক্রান্তদর্শী ,শিল্পপতি,
চিত্রকৃৎ ,প্রাপ্তযৌবন
শেষ পাতে ধেনো মাতাল।
বিহগের কুজনে ফিরে যায় রূপাজীবা আগারে।
বিকলাঙ্গ তনুজ , প্রাণ ভ’রে পান করে সুধারস।
অবশিষ্ট অবলম্বন একমাত্র জননী তার।

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!