কবিতায় শিপ্রা দে

বল্গাহীন মন

কালো মেঘের ঘনঘটা আকাশখানা ঢাকে
মেঘবালিকা ব্যস্ত থাকে বিজুরি খুব ডাকে।
দিবাকরের মেঘের সাথে লুকোচুরির খেলা
কখনো রোদ কখনো মেঘ কাটে এমন বেলা।
ঝমঝমিয়ে বৃষ্টি নামে দূরে খেলার মাঠে
ছেলেরা সব নাইতে গেছে পদ্ম দীঘির ঘাটে।
খুশির ধারা বইছে মনে জানলা ধরে থাকি
দিনের রবি যায় না দেখা গাছের ডালে পাখি।
তপ্ত ধরা শীতল হলো মেঘের ডানা মেলে
হাঁসেরা সব নতুন জলে সাঁতার কেটে খেলে
সবুজ হলো গাছগাছালি প্রাণ পেয়েছে ফিরে
ভাটিয়ালির গানের মাঝে মাঝিভাই যে তীরে।
পদ্ম হাসে শালুক হাসে কালো দীঘির জলে
দাদুরীর ডাক ঐ শোনা যায় কদম গাছের তলে।
ময়ূর নাচে পেখম তুলে শাল পিয়ালি বনে
মাদল বোলে নাচের তালে মাতাল করে মনে।
বৃষ্টি ভেজা বকুল তাজা প্রথম প্রেমের কলি
সিক্ত হলো শুষ্ক ঠোঁটে পিপাসিত অলি।
বাহির পানে দূরের বনে রাখাল বাঁশি সুরে
বল্গাহীন’এ মন ছুটেছে ঘরের থেকে দূরে।
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!