গল্পেরা জোনাকি তে রীতা চক্রবর্তী (পর্ব – ২৭)

নীল সবুজের লুকোচুরি

মাদার এগিয়ে এসে বলেন,” আমরা খুব শিগগিরই ডাক্তার আনসারিকে আমাদের সাথে পাবো বলে আশা করছি। আশ্রমের ‘সেবাসদন’ ওনার যদি ভালো লাগে তবে আমার দৃঢ় বিশ্বাস ওখানকার স্টাফ যারা আছেন তারা আগামী সময়ে ওনার সাথে মাঝে মাঝে কাজ করার সুযোগ পাবেন। এতে আমাদের আশ্রম এলাকার মানুষের জীবনের মান উন্নত হয়ে উঠবে।

আমার বিশ্বাস ডাক্তার সাহেব আমাদের ডাকে নিশ্চয়ই সাড়া দেবেন।” ডাক্তার আনসারি হাসি মুখে মাদারের দিকে হাত বাড়িয়ে দিয়ে বলেন , আপনি নিশ্চিন্ত থাকতে পারেন। আপনার কাছে আমাকে যেতেই হতো।আপনাকে সত্যি কথাটা বলতে আমার এতটুকুও অসুবিধে নেই। আসলে যেদিন ডাক্তার আয়ুস্মিতাকে প্রথম দেখেছি সেদিন থেকেই আমার মনের মধ্যে একটা আশার আলো দেখা দেয়। ওর চলা বলার ধরণ আমার বড্ড চেনা। তাই ওর মাকে দেখার একটা অদম্য কৌতুহল আমাকে অস্থির করে তুলেছিল।ওর কাছে মাদারের কথা খুব শুনেছি। তখন মনের মধ্যে একটা আনন্দ যেমন হত তেমনই একটা শঙ্কাও হতো। ওকে দেখে আমার সুমিতার প্রতিচ্ছবি মনে হয়! সুমিতাই কি ওর মাদার?সেই কি সন্ন্যাসিনী? নাকি ও মা হারা? এইসব প্রশ্নের উত্তর খুঁজতেই ভেবেছিলাম একবার আশ্রমে যাব, তাই আরকি! তবে আজ একসাথে আপনাদের সবার দেখা পেয়ে আমি আপ্লুত। আজ আমার এতদিনের একটা খোঁজ শেষ হল। অবশ্য সবটাই আয়ুস্মিতার জন্য সম্ভব হয়েছে। আমার ওর সাথে পোষ্ট অপরেটিভ কন্ডিশন ছিল ওর মাকে আমি ফিজিক্যালি মিট করে থ্যাংকস বলব।সেটা আজ সম্ভব হয়েছে ওর জন্যই। তাই আপনি নিশ্চিন্তে থাকুন। আবার আমাদের অবশ্যই দেখা হবে আপনার আশ্রমে।
খুব ভাল লাগল আপনার সম্মতি পেয়ে। তবে আরো একটা কথা এখনই বলে রাখছি। প্রতি বছরের মতো এই বছরও আমাদের আশ্রমের বার্ষিক উৎসবের অঙ্গ হিসেবে নানান সেবা মূলক ক্যাম্প হবে। এবার যেহেতু আমাদের “সেবা সদনের” প্লাটিনাম জুবিলি তাই সাত দিন সম্পূর্ণ বিনামূল্যে চিকিৎসাশিবির করা হবে। এরই মাঝে আমরা পেয়ে যাবো ডাক্তার দেশিকান’কে। দীর্ঘদিন বিদেশে কাটিয়ে এবার সে ফিরবে বলে জানিয়েছে। বলতে পারেন ঘরের ছেলে ঘরে ফিরে আসছে। তারই একান্ত ইচ্ছা যে সাত দিনের জন্য স্পেশালিস্ট ডাক্তারদের সাথে এই “ফ্রি ক্যাম্প” এর আয়োজন করা হোক। ছোটবেলা থেকে সে যেখানে বড় হয়েছে সেখানকার জনগণের স্বাস্থ্য সচেতনতা বাড়াতে উদ্যোগ নেবার জন্যই সে এবার ফিরে আসছে। তার আমন্ত্রণে বিদেশ থেকেও অনেকেই আসবেন। সেখানে আপনি থাকলে আমাদের এলাকার মানুষজন খুবই উপকৃত হবে। তাই অন্তত সাতদিনের জন্য আপনাকে আসতেই হবে।

আসছি পরের পর্বে

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!