কবিতায় পিনাকী বসু

দিন বদলায়

আধমরা নদীটার সাঁকোয় বসে,
পরিযায়ীদের গল্প শুনছিলাম।
খাদানের অতলের সব গল্প।
অবৈধ মোহনায়, বিকেলের রোদে,
আজও, তাদের পায়ের ছাপ স্পষ্ট।
গর্তের কিনারা বেয়ে বাঁচার প্রশ্বাস।
বাঁধনা পরবে যে অহীরার সুর ভাসত,
তার নীলচে শরীর জুড়ে থাকত,
সর্বনাশা কুয়াশার ভার।
আলতা রাঙা পায়ে থাকত
কালো মাটির দাগ, আর,
কাশির দমকে দমকে তরতাজা রক্ত।
যে জায়াগায় আমার পৃথিবীটা রঙীন ছিল,
তারই চাঁদোয়ার নীচে,
তাদের সময়েরা অপেক্ষায় থাকত।
সেখানেই একদিন ভাঙা ডানার পাশে,
বেড়ে উঠেছিল আকাশলীনা গাছটা।
সমান্তরাল তটরেখায় রক্ত মাংসের মৌতাত।
এতে অবশ্য অবাক হওয়ার কিছু ছিল না।
কারণ, আসলে আমরা সবাই তো পরিযায়ী,
এখানে আমাদের কারোরই স্থায়ী ঘর নেই।।
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!