ক্যাফে টক

সে বহুকাল আগের কথা । বিবিমিষা নামে এক রাজ্য ছিল। বিবিমিষা বংশের রাজারা ছিল তিক্ষ্ণ বুদ্ধিধর।পটু হাতে রাজ্য পরিচালনা করতেন। সেখানকার শিক্ষা ব্যাবস্থা ছিল এমন গরীব চিরকাল গরীবই থাকতো যারা উচ্চবিত্তের এবং রাজ পরিবারের সদস্য অথবা রাজ সভাসদদের নিকটস্থ শুধু তারাই উচ্চ শিক্ষা এবং রাজ্যের উচ্চ মর্যাদা সম্পন্ন পদ পেতো। তবে প্রজারা যে বঞ্চিত হচ্ছে সেটা তারা বুঝতে পারতো না বলে তারাও আলো অন্ধকারে, অর্ধশিক্ষা অল্প শিক্ষায় , রেশনের মোটা চালে আর খানা খন্দ রাস্তা নিয়েও অভ্যস্থ সুখে ছিলো।
কাল হলো যখন বুড়ো রাজা সরে গেলেন আর নতুন যুবরাজ রাজা হলেন। তিনি রাজ্য কে আরও উন্নত আরও প্রগতিশীল করতে এমন তৎপর হলেন যে চারিদিকে সভাসদদের দম্ভ আর অহঙ্কারে সাধারণ প্রজা অতিষ্ঠ হয়ে উঠলো। ঠিক সেই সূযোগটার অপেক্ষায় ছিলো কিছু মানুষ। তারা জনে জনে গিয়ে বললো আমরা এক ডাকিনি কে চিনি যে দেখতে একজন অতি সাধারন মানুষের মত কিন্তু তার পোষ্য ভুত ও তন্ত্রবলে এই অহঙ্কারিদের উচ্চ শিক্ষা দিতে পারে।
অতি উৎসাহে গোপনে বিক্ষুব্ধ প্রজারা নিয়ে এলো সেই ডাকিনিকে। প্রজারা ভেবেছিলো এবার উচিত শিক্ষা হবে । উচিত শিক্ষা হলো বটে কিন্তু বিবিমিষা রাজ্যের প্রধান হয়ে উঠলো সেই ডাকিনি। সারা রাজ্যে লুটপাট, তছরুপ, বেইমানি শুরু হল আর তার থেকে অর্জিত অর্থে ফুলেফেঁপে উঠতে থাকলো ডাকিনির বংশধররা।
প্রজারা এবার অসহায়, নিরুপায়, কোথায় যায়, আবার কাকে ডাকে, যদি সে আরও ভয়ঙ্কর হয়। সব ভেবে সহ্য
করা ছাড়া কোনো উপায় দেখছে না যখন কেউ হঠাৎ একদিন সোরোগল পড়ে গেলো চারিদিকে। সারা রাজ্য জুড়ে কে এক সাধারণ মানুষ কাগজ ছড়িয়ে দিয়েছে রাতারাতি।

যাতে লেখা আছে

সব বেইমান সভাসদ হুঁশিয়ার
সবার জন্য একটাই শাস্তি নির্ধারিত হয়েছে, মৃত্যু
আগামী প্রতিটি মুহূর্তে যে কেউ আপনাদের খুন করতে পারে । সব মুখোশধারী বেইমান সাবধান।

একজন সাধারণ মানুষ।

হুলুস্থুল পড়ে গেলো চারিদিকে, ফল হল ভয়াবহ। চারিদিকে আতঙ্কের পরিস্থিতি। একি শুধু হুজুগ নাকি সত্য। রাজ্যের শেষ প্রান্তে ভাগের বখরা নিয়ে লড়াই হলো দুই গোষ্ঠীতে , মারা গেলো একজন। ঢি ঢি পড়ে গেলো চারিদিকে একজন সাধারণ মানুষ জেগে উঠেছে এবং সেই মেরেছে।
পরের মাসে রাজ্যের অপর প্রান্তে জমি নিয়ে বিবাদের জেরে আবারও খুন হলেন একজন। এবারও রটে গেলো একজন সাধারণ মানুষ জেগে উঠেছে যে বেছে বেছে বেইমান দের মারছে।

এইবার কিন্তু বেইমান রাও ঘাবড়ে গেল আর তাদের ঘাবড়ে যাওয়া ভয় পাওয়া দেখে উল্লাসিত হয়ে উঠলো বিবিমিষা রাজার প্রজারা। ভুয়ো সাধারণ মানুষ তৈরি হতে থাকলো চারিদিকে।

প্রথম যে সাধারণ মানুষ শুধু ভয় দেখাবে বলে রসিকতা করবে কাগজ ছড়িয়ে ছিল সারা রাজ্যে। সে একদিন আত্মহত্যা করলো আর লিখে গেলো এর শেষ কোথায় আমি জানি না তবে শেষের শুরুটা করে দিতে পেরেছি।

আমি একজন সাধারণ মানুষ।

নব কুমার দে

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!