কবিতায় মল্লিকা চক্রবর্ত্তী

১| মৌন মিছিল

মৌন মিছিলে হয় কিছু,আমার তো নেই জানা,
দাঁত দিয়ে পাঠিয়েছেন ওনি ব্যবহারের নেই মানা!
হারতে আমি আসিনি,এখনো বলছি ঠিক কথা,
মরতে হবেই একদিন, অমর্যাদায় নেবোই মাথা।
এ সৎসাহস জন্মগত, যেমন আমি কবিতা লেখি,
অন্যাই করতে জানিনা,চোর, ছ্যাচড়া কখনো না,
অন্যাই পারি না মানতে, শান্তির তরে চুপ থাকি!
রেগে যখন যাই আমি, বলতে বাকি কিছু না রাখি।
হোক সে মাতা,পিতা, হোক না সে গুরুদেব মোর ;
ন্যায়, সত্য তুলে ধরতে, এ আমার ঐশ্বরিক জোর!
দুর্গা লক্ষ্মী আমরা মোরা, সময়ে কালি সাজতে হয়
তবেই পাবে অধিকার তব,না হলে তুমি কিচ্ছু নয়!
কালি মায়ের মতো নাশো শত্রু,গলে পরো মুণ্ডমালা;
পালাবে অসুর ভয়ে দেখো, থেকো না হয়েই বালা।

 

২| আম চুরি

রাস্তায় যেতে যেতে,
কাঁচা আম ঝুলছে দেখে;
ইচ্ছা হলো খুব খেতে!
দুটো আম যেই পেড়েছি,
কাকা টা আসলো তেড়ে ;
যেনো যমদূত সে রে!
দেখে আমি দিয়ছি দৌড়,
কাকা টা ছুটে আসে ভাই ;
আম গুলো সামলে নিয়ে,
আমিও দৌড়ে পালাই!
ভাবি এবার পড়বো ধরা,
জীবনে লজ্জায় মরা।
আম গুলি দিলাম ছুঁড়ে,
ধরে ভাই তবুও মারে!
আমাদের তো কতো গাছে,
ওঠে সকলে সকাল সাঁঝে;
আমরা তো কিছু বলি না,
তাদের পিছে দৌড়াই না!
মায়া দয়া নাই কো এদের,
গাছ গুলো ছিলো আমাদের!
ধনী ওরা কিনে নিয়েছে ;
বাবা কি স্বইচ্ছায় দিয়েছে!
নিয়েছে ওরা জবরদস্তি ;
ধনী দের বেজায় মস্তি!
দুটো আম নিয়েছি বলে ;
দিলো ভাই কানও মুলে!
কাকার কি উচিত হলো ;
গাছ তো আমাদের ছিলো!
নেবো না কখনো ভাই!
কিনে ওরা নিয়েছে যখন,
হয়ে গেছে ওদের এখন!
কাকার হাতের খেলে ডাণ্ডা,
হয়ে যাবো এক্কেবারে ঠাণ্ডা।
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!