T3 কবিতায় পার্বণে বিপ্লব গোস্বামী (গুচ্ছ)

১| ভালোবাসা কারে কয়

আমি আজো বুঝিনি
ভালোবাসা কারে কয় ?
আমি আজো জানিনি
প্রেম কি করে হয় ?
যে প্রশ্নের উত্তর পেতে
অমর প্রেমিক চণ্ডীদাস,
বারো বছর বড়শি বেয়ে
মিটল না তাঁর মনের আশ।
যার উত্তর দিতে গিয়ে
অমর প্রেমিকা আনারকলি,
জ‍্যান্ত সমাধি হয়ে
দিয়ে গেলো প্রেমের বলি।

২| গোলাপ

একটা বজ্র কীট গোলাপটাকে
কেটে টুকরো টুকরো করে দিলো।
তুব গোলাপ হারায়নি গৌরব
টুকরো পাপড়িতে পুষ্পের সৌরভ।
সেতো গোলাপ,ফুলের রাণী
ছন্দমাখা পদ‍্য,নবিসের বাণী।

৩| তিনিই সব

তিনি সূর্য হতেও অতি পুরাতন
তিনি বিকশিত কুঁড়ি অপেক্ষাও নূতন।
তিনিই আনাদির আদি প্রভু,তিনিই সম্পূর্ণ
তিনি অনাচারী-অত‍্যাচারীর দর্প করেন চূর্ণ।
তিনি রক্ষা করেন ভবের প্রতি জীব
প্রলয় ধ্বংশে নিজেই তিনি শিব।
আলো দানিতে তিনি নিজে দিবাকর
জ‍্যোৎস্না বিলাতে তিনিই সুধাকর।
স্বর্গ শাসিতে তিনিই তো বাসব
কৌরব নাশিতে তিনিই পাণ্ডব।
তিনি অনাদির আদি ভোলা-পশুপতি
তিনিই ধনের স্বামী কুবের ধনপতি।
জ্ঞান বিলাতে তিনিই বৃহস্পতি
শক্র নাশিতে তিনিই সেনাপতি।
জ্ঞানে-বিজ্ঞানে তিনি সীমাহীন সাগর
সর্ব মন্ত্রের সার তিনিই একাক্ষর।
তিনি বারিবাহি গঙ্গা পবিত্র নির্মল
তিনিই বাঁধার প্রাচীর বিন্ধ‍্য-হিমাচল।
তিনিই উপাস‍্য স্বামী সর্ব দেবগণে
তিনিই সুধা রক্ষক সমুদ্র মন্থনে।
তিনিই গন্ধর্ব ,তিনিই চিত্ররথ
পশু মধ‍্যে তিনিই শ্রষ্ঠ ঐরাবত।
তিনিই বরুণ ,তিনিই জলাধিপতি
তিনিই প্রহ্লাদ ,তিনিই সুকৃতী।
রারণ বধিতে তিনি রাম দশরথি
তিনিই এনেছেন মর্ত‍্যে গঙ্গা-ভাগীরথি।
তিনি গঙ্গা ,তিনিই গায়ত্রী ,তিনিই সাবিত্রী
তিনিই শ্রী,বাণী,স্মৃতি,মেধা,ক্ষমা,ধৃতি।

৪| বদলে গেছে

আধুনিকতায় গ্ৰাস করেছে
বদলে গেছে দেশ,
বদলে গেছে আদব-কায়দা
বদলে গেছে বেশ।
বদলে গেছে শহর-নগর
বদলে গেছে গ্ৰাম,
বদলে গেছে জাত-পরিচয়
বদলে গেছে নাম।
অবনী এখন অব্নি হয়েছে
কৃষ্ণ হয়েছে কৃষ,
কর্ণ এখন করণ হয়েছে
তৃষ্ণা হয়েছে তৃষ।
মনসা এখন মন্সা হয়েছে
মানসী হয়ছে মান্সি,
রোবিয়া এখন রোব্বি হয়েছে
তানিসা হয়েছে তান্সি।
সম্ভাষণের রীতি হারিয়েগেছে
বদলে গেছে ধরণ,
নমস্কার এখন হারিয়েগেছে
হেন্ডসিপে হয় বরণ।

৫| কেন

নীরব কেন দেশের বুদ্ধিজীবি
নীরব কেন মানবাধিকার কমিশন ?
কেন প্রকৃত গুণে নয়,
জাতে দেওয়া হয় অগ্ৰাধিকার !
কেন শহিদ-পরিবার, দীন-দরিদ্র
পায় না রিজার্ভেশন ?
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!