লে ছক্কায় (নির্বাচিত কবিতা) বিপ্লব গোস্বামী

১। ফরিয়াদ

নাইবা পেলো আমার লেখায়
কবিতার সম্মান !
নাইবা হলাম সম্মানিত ,পুরস্কৃত !
না হয় নাইবা পেলাম
কবি সভায় স্থান !
তবু আমি লিখে যাবো সদা
নিজেদেরি কথা,
যারা প্রতি পদে পদে হতে হয়
অপমানিত,অবহেলিত নয়তো
নির্যাতিত আর অপমান।
মোরা সর্বংসহা মৌন প্রজা
সুখে-দুঃখে, ইচ্ছায়-অনিচ্ছায়
ছলে-বলে, মানে-অপমানে
সদা করি মহারাজের জয়গান।
মোদের অন্তর বেদনা অন্তর তলে
লুপ্ত সদা রয়,
হাসির আড়ালে লুকিয়ে রাখি
সদা নিজেদের পরিচয়।
প্রথিতষশা কবিদের লেখায় নেই
মোদের কাহিনী কথা !
বিলাসী অট্টালিকার প্রাচীর ভেদিয়া
পৌছয় না আকুলতা !
যারা টিবির পর্দায় শ্রমিকের অভিনয়ে
অর্জন করে খ্যাতি
তাদের মরণে রাজা প্রজা কাঁদে ;
রাত দিন সাত দিন
মিডিয়া করে স্তুতি !
শ্রমিকের মরণে মিডিয়া নিশ্চুপ !
কার কি আসে যায় ?
দুয়ারে দুয়ারে সহায়তা লাগি
শ্রমিক পত্নী অশ্রু ঝরায়।
লোনের দায়ে গলায় দড়ি দিয়ে
আত্মহত্যা করে চাষী !
পেটের দায়ে সতী সাবিত্রী
হতে হয় যৌন দাসী।

২। মায়ের দেওয়া শিক্ষা

মায়ের কাছে শিক্ষা পেলাম
সত্য কথা বলতে,
অসৎ সঙ্গ ত্যাগ করে
সৎ পথে চলতে।
মায়ের কাছে শিক্ষা পেলাম
শিক্ষা গুরু ভজতে,
মানী জনে মান দিতে
সত্য নিষ্ঠায় মজতে।
মায়ের কাছে শিক্ষা পেলাম
স্বচ্ছ হয়ে থাকতে,
ঘর,দোর,বিদ্যালয় গৃহ
সাফ সাফাই রাখতে।
মায়ের কাছে শিক্ষা পেলাম
স্বাস্থ্য বিধি মানতে,
যোগ,ব্যায়াম,শরীর চর্চা
নিয়ম নীতি জানতে।
মায়ের কাছে শিক্ষা পেলাম
দীনের দুঃখ বুঝতে,
অসহায়,আর্তে সাহায্য করতে
অশুভের সাথে যোধতে।

৩। কুরবানি

সারা বিশ্বে আনন্দ জোয়ার
এলো কুরবানির ঈদ ;
আজি কুরবানি দেবো পশুত্ব
অহং ভরা হৃদ।
কুরবানি করব অশুভ শক্তি
লোভ,মোহ,কাম ;
অধর্ম,অন্যায়,নারী লালসা
যত সব হারাম।
ইসমাঈলের পিতা ইব্রাহিম সেদিন
আল্লাহর আদেশ মতে ;
কুরবানি দিলেন পুত্র মোহ
সেই আরাফাতের পর্বতে।
আজি মোরা করব সবে
মনের শয়তান বলিদান ;
আনন্দেতে গাইব সবে আজি
মহান আল্লাহর জয়গান।

৪। দয়াল প্রভু

মানবের তরে দয়াল প্রভু
করেছো কেবল দান,
আকাশ,বাতাস,গ্ৰহ,তারা
চাঁদ,নদীর কলতান।
বাঁচিবার তরে দিয়েছো বাযু
তৃষ্ণা মিটাতে জল,
ক্ষুধা মিটাতে দিয়েছো অন্ন
শাক,সবজি,ফল।
আঁধারনাশিতে দিয়েছো রবি
জোছনা ছড়াতে চাঁদ,
নিরাপদ আশ্রয় দিয়েছো দয়াল
দিয়েছো গগন ছাদ।
না চাইতে দিয়েছো সবই
হে দয়াল মহান,
যা পেয়েছি যা দেখেছি
সবই তব দান।

৫। বদলে গেছে

ব্লক করেছিস আমার ফেসবুক প্রোফাইল
ভেঙ্গে ফেলেছিস আমার দেওয়া মোবাইল।
ব্লক লিস্টে রেখেছিস আমার মোবাইল নং
আস্তে আস্তে বদলে দিলে কথা বলার ঢং।
বদলে দিলে চিন্তা ভাবনা বদলে দিলে মত
অবশেষে বদলে দিলে বাড়ি ফিরার পথ।
বুক ভরা আশা তোর বড় হওয়ার স্বপন
সরাতে চাস পথের কাঁটা আমি পুরাতন।
জানতাম যদি তোর বদলে যাওয়ার কারণ
হাসি মুখে দিতাম বিদায় করতাম না বারণ।

৬। মাতৃ বন্দনা

গাহি আমি জয় মায়েরি জয়
অশুভ শক্তি নাশিয়া যাহারা
সত্য করিলা জয়।
গাহি আমি জয় মায়েরি জয়
যাহার স্তনে বাঁচিয়া নর
মানব মহামানব হয়।
গাহি আমি জয় মায়েরি জয়
সন্তানের কষ্টে রাত জাগিয়া
শিয়রে যাহারা রয়।
গাহি আমি জয় মায়েরি জয়
শত যাতনা হাজার লাঞ্ছনা
নীরবে যাহারা সয়।
গাহি আমি জয় মায়েরি জয়
শত বেদনা গোপনে সহে
সন্তানের কথা কয়।
গাহি আমি জয় মায়েরি জয়
যাহার আঁচলে থাকিতে মোদের
নেইতো কোন ভয়।
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!