• Uncategorized
  • 0

মণিশঙ্কর বিশ্বাসের কবিতা

যে বয়সে প্রতিভাবান কবি (Arthur Rimbaud) লেখা ছেড়ে দেন, সেই বয়সে হাত মকশো শুরু। কবিতা লেখার ব্যাপারে পেডিগ্রি বলতে দৈবক্রমে বিনয় মজুমদারের প্রতিবেশী। এছাড়া অবৈধ সম্পর্কের মত ‘গান্ধার’ পত্রিকার সঙ্গে যুক্ত থাকার অভিজ্ঞতা। ১৯৯৮ সালের বইমেলায় অল্প কিছু কবিতা নিয়ে গান্ধার থেকেই প্রথম কবিতা সংকলন, “নম্র বৈশাখী ও নীলিমার অন্যান্য আয়োজন”। ২০০১ সাল থেকে বিদেশে বসবাসরত এবং কবিতার সঙ্গে সকল প্রকার সংস্রব ত্যাগ। ভার্চুয়াল যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি হওয়ায় এবং কিছু অতি ঘনিষ্ঠ বন্ধুর উৎসাহে, ২০১০ সাল থেকে পুনরায় অকেশনালি দু’একটি করে কবিতা লেখা ও প্রকাশ এবং এভাবেই বন্ধুদেরই উদ্যোগে একক প্রদর্শনী “চন্দনপিঁড়ি” প্রকাশিত হয় ২০১৪ সালে। দ্বিতীয় একক বই “অশ্রুতরবার” প্রকাশিতব্য।

মেঘ

আজ স্মরণে এসেছে রক্ত কুরুবক

মাঠে ওই রাঙা রোদ বাঁশিতে জড়ানো মালা।

নিশ্চূপ ধানের শীষে একটি প্রচ্ছন্ন প্রজাপতি—

এই কূটাভাষ প্রায় আত্মজিজ্ঞাসার।

যেন এখন স্বরূপ দেখার সময়—

যেন দৃশ্য বলে দেবে কীভাবে রাখাল ছেলে

ফিরে যাবে গৃহে

 

মন্দিরের গর্ভগৃহ হতে পোড়া-মাটির বিগ্রহ দেখে

তাহার সন্তান আজ তাহার হাতের

ঐ বাহিরে খেলা করে।

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!