দিব্যি কাব্যিতে জয়িতা চট্টোপাধ্যায়

মৃদু অভিমানে

তোমাকে ঘিরেই আমার সমস্ত স্বপ্ন
আমার মাথার ওপর মরমী আকাশ,
স্মৃতি মাখা চাঁদ, সব যেন তুমি মনে হয়
রূপকাহিনীর গাঢ় পাতার মতো স্বপ্নে
রূপময় তুমি, তুমি আমার ভেনিস নগরী,
সিক্ত বাষ্পকুল বুকের ভেতরে
রঙিন বর্ষা শিল্পীর সর্বরী
তোমার মুখের ছবি উদ্ভাসিত হয়
আমার জ্যোৎস্না খচিত দেহে
স্মৃতির যেমন সূর্যাস্ত হয়
অনুভূতিশীল মেঘে
রাত্রি নামে নক্ষত্রের কার্পেটে
অভ্রভেদী অব্যক্ত গাছগুলো ব্যকুল হয়ে
আমাকে কাঁদায় বাউলের উত্তরীয় পেতে
এক ঝাঁক তুমি নামের মনোহর মেঘ
আমার উন্মুক্ত কার্নিশে
আমার শরীরে জড়ানো মানবিকতার রাঙা ফুল
আমি রক্তাক্ত নিজেরই হাতে
শিউরে উঠি পার হতে পারি না আমার পরিসীমা
নিজের দুই হাত ছিঁড়ে স্পর্শ করতে চাই তোমার স্নিগ্ধ দুই চোখ,
চিঠিতে অনুবাদ করি
তোমায় জমা রাখি মৃদু অভিমানে
স্বপ্ন নীলিমায় রেখেছি তোমার গূঢ় উদ্দীপনা
করিয়েছি রোজ নিজের মৃতদেহ কে স্নান।।

Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!