T3 ।। কবিতা পার্বণ ।। বিশেষ সংখ্যায় অভিষেক সৎপথী

ফসলের গুচ্ছ কবিতা

(১)
সারা মাঠে আজন্ম বুনেছো শৈশব
ফসলের ভাষা শিখে নিয়েছো মায়ের মতো
প্রতিটি ফসলের জন্ম নক্ষত্রের মাঝখানের
আল পথে বেগুনি ফুলে ভরা ফসলের অরণ্যকথা
ভাগ চাষের দৈর্ঘ্য প্রস্থ হীন ‘যা হবে,যা পাবো,তা খাবো’
দিনরাত ফলানো তোমার মজ্জাগত।
(২)
তোমাকে কাঁদতে হয়
লবণ জল জমিতে গড়িয়ে এসে
ফসল পরিপুষ্ট যদি হয়, না হয় হোক।
পাখিদের জন্য শোক নেই
যেটুকু রাখা আছে নবান্ন হোক
পৌষের লক্ষী গোবর নিকানো খামার ইমিউনিতন্ত্র
ফিরে আসে চিরায়ত ফলিডল ঈশ্বরফুলে ।
(৩)
ধানের পরিপুষ্টতায় লেগে থাকে
যে আদরের দাগ
তা ধুয়ে যায় হঠাৎ নিম্ন চাপের বৃষ্টির জলে
চোয়ালের নীচে অন্য আর একটা দাগ
আর যাইহোক তিনগুণ উপার্জন বৃদ্ধির উপহারস্বরূপ নয়।
(৪)
শীতকালে খামার যুক্তাক্ষরের মতো হয়ে যায়
গোরুদুটি অভ্যাসগত কাঠিন্যে দাঁড়িয়ে থাকে
ইতস্ততঃ ধান পালুই খড় পোহাল
শীত এলেই বাবাকে হারকিউলিস মনে হয়।
Spread the love

You may also like...

error: Content is protected !!