গুচ্ছ কবিতায় লিপি সেনগুপ্ত 

    0
    20
    Spread the love
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  

    ১| যতটুকু থাকে দৃষ্টিপথে

    এইখানে এসে
    লেখা থেমে গেছে
    দিনলিপি পশ্চিমপাড় ঘেঁষে।
    শব জ্বলে!
    সব জ্বলে?
    জ্বলে পুড়ে ছাই
     ভেজা হাতে
    দেওয়াল ধরেছিলে!
    জলছাপ শুকিয়েছে, তাপে!
    আঁজলায় যত জল
    তার বেশী মায়া
    ফোঁটা ফোঁটা
    টপ্ টপ্…….  টপ্ টপ্  ….
    এমন কাঙালপনা
     বিনোদিনী ছাড়া
    আর কার আছে ,বলো?

    ২| শূন্য হাতে

    নক্ষত্র ঝরে পড়ে
    আদুল উঠোনে
    গন্ধরাজ লেবুর ফুলও…
    জ্যোৎস্না ভেজা
    আটপৌরে থানে
     রাই বসে অসীম চৌকাঠে।
    শেষ ট্রেনে সেইবার
    যে এসেছিল
    এই চৌকাঠ থেকে ফিরে গেছে—
    ও কি মন্দ?
    বাসা থেকে তার গন্ধ
    কেন তবে গেল না এখনও!

    ৩|   বুভুক্ষু

    যে উঠোনে চাঁদ সব জেনে
    উপুড় করেছে ভাতের হাঁড়ি
    সেখানে ঝাঁট পড়েনি,
    বৃষ্টি নামেনি!
    তবু ভেজা ভেজা মাটি আর
    নাম না জানা বনফুল!
    পাশের কৃষ্ণচূড়া গাছে
    বাসা বেঁধেছে কাক ও কোকিল
    পরস্পরকে দোষারোপ রোজ রোজ!
     মাঝ রাতে একাকী পা চলতে থাকে।
    পেটের খিদের থেকেও বেশী
    চনচন করে!
    ভাত পড়ে আছে যে উঠোনে!

    Spread the love
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •  
    •